শেখ্‌ Google হতে সাবধান

আজকাল আমরা ইসলাম সম্পর্কে জানার জন্য ইন্টারনেটের উপর অনেকখানি নির্ভর করি। যখনি ইসলামের কোনো নিয়মকানুন, কোনো অনুষ্ঠান, কোনো বিতর্কিত ব্যাপার সম্পর্কে মনে প্রশ্ন জাগে, হয় আমরা ইন্টারনেটে সার্চ করি, না হয় ফেইসবুকে বন্ধু-বান্ধবকে জিজ্ঞাসা করি। শেখ্‌ Google যেহেতু আমাদেরকে বিজ্ঞান, গণিত, দর্শন ইত্যাদির উপর যাবতীয় প্রশ্নের সঠিক সমাধান দেয়, আমরা ধরে নেই ইসলাম সম্পর্কেও সে নিশ্চয়ই সঠিক সমাধান দেয়। আর ফেইসবুকে যেই ফ্রেন্ডের মুখে ঘন দাঁড়ি এবং মাথায় টুপি দেখা যায় এবং অনেক ইসলামিক আর্টিকেল শেয়ার করতে দেখা যায়, আমরা ধরে নেই ইসলামের ব্যাপারে তার মতামত নিশ্চয়ই সঠিক। আমাদের এই ধারণাগুলো কি ঠিক?

ভুয়া মুসলিম নাম নিয়ে লেখা বই, আর্টিকেল

ইন্টারনেট ভর্তি হাজার রকমের গুজব এবং ভুয়া গবেষণায় ভরা শত শত মতবাদ পাবেন, যা আপনার কাছে পড়লে মনে হবে বিরাট আলেমরা লিখেছে। কিন্তু ভালো করে খোঁজ নিলে দেখবেন আসলে সব ভুয়া। কু’রআনকে নিয়ে ইন্টারনেটে গবেষণা ধর্মী আর্টিকেলের কোনো অভাব নেই। বেশিরভাগই হয় বিধর্মীরা ভুয়া মুসলিম নাম দিয়ে (যেমনঃ ডঃ আব্দুল মাসিহ, যা একটি আরব খ্রিস্টান নাম, এর অর্থ ‘যীশুর দাস’) মুসলমানদেরকে বিভ্রান্ত করতে লিখেছে, না হয় কোনো অর্ধ শিক্ষিত মুসলিম, যার ইসলামের উপরে কোনো ডিগ্রি নেই, প্রাচীন কু’রআনের আরবি নিয়ে কোনোই জ্ঞান নেই, এমন সব মানুষ শুধুমাত্র নিজের যুক্তি এবং পর্যবেক্ষণ ব্যবহার করে, শুধুই কু’রআনের ইংরেজি অনুবাদের উপর ভিত্তি করে, আর্টিকেলের পর আর্টিকেল লিখেছে। এধরনের আর্টিকেল পড়তে যতই পাঠ মধুর হোক না কেন, এগুলো লেখার মুল উদ্দেশ্য হচ্ছে মুসলমানদের ভেতরে খুব সাবধানে মতপার্থক্য ঢুকিয়ে দেওয়া, যাতে করে মুসলমানরা একে অন্যের বিরুদ্ধে যুক্তিতর্ক, বিভেদে জড়িয়ে পড়ে এবং একসময় মুসলিম জাতি বিভিন্ন দলে আলাদা হয়ে পড়ে। এধরনের আর্টিকেল পড়লে দেখবেন আপনার মনের ভিতরে ইসলামের বিভিন্ন নিয়ম-কানুন এবং রীতিনীতি নিয়ে প্রশ্ন, দ্বন্দ্ব এবং আল্লাহ্‌র সিদ্ধান্ত নিয়ে নানা ধরণের ‘কিন্তু…’ বাড়তেই থাকবে। “কেন আল্লাহ এটা বলল? কেন আল্লাহ এরকম না করে ওরকম করলো না? কেন আল্লাহ শুধুই মেয়েদের জন্য এরকম, কিন্তু ছেলেদের জন্য ওরকম নিয়ম দিলো? …” এই হচ্ছে তাদের উদ্দেশ্য। আমরা মুসলমানরা নিজেদের মধ্যে যত কামড়াকামড়িতে ব্যস্ত থাকবো, একে অন্যকে ভুল প্রমাণ করতে যত বেশি সময় খরচ করবো, বিধর্মীদেরকে ঠিক তত কম খাটতে হবে ইসলামের বিরুদ্ধে অপপ্রচার করার জন্য।

ভুয়া রেফারেন্স দিয়ে লেখা আর্টিকেল

অনেক সময় দেখবেন আর্টিকেলে কোনো এক মুসলিম ওয়েব সাইটের আর্টিকেলের রেফারেন্স দেওয়া আছে, যেটা কোনো এক প্রসিদ্ধ মাওলানা/শেখ/ডঃ লিখেছেন। কিন্তু আসলে সেই ওয়েবসাইটটিও ওই প্রতারকদেরই বানানো এবং রেফারেন্স দেওয়া সেই আর্টিকেলটিও আসলে ওই প্রতারকদেরই লেখা, প্রসিদ্ধ কারো নাম নকল করে। বিখ্যাত লোকদের নাম ব্যবহার করে ডোমেইন কিনে ভুয়া ওয়েবসাইট তৈরি করে সেখানে সেই বিখ্যাত মানুষদের নাম ব্যবহার করে নকল আর্টিকেল লেখাটা এক পুরনো কৌশল।

এছাড়াও অনেক আর্টিকেলে আপনি বানানো বা সন্দেহজনক রেফারেন্স পাবেন, যেই রেফারেন্সগুলো কোনো একাডেমিক প্রক্রিয়ার মধ্যে দিয়ে গিয়ে পরীক্ষিত, পরিমার্জিত এবং অনুমোদিত হয়নি, অথবা কোনো যোগ্য আলেমের স্বীকৃতি পায়নি। শুধুমাত্র নির্ভরযোগ্য বিশ্ববিদ্যালয় থেকে প্রকাশ করা জার্নাল, প্রসিদ্ধ আলেমের লেখা বই এবং বিখ্যাত আলেমদের দ্বারা পরিচালিত ব্লগ বা ওয়েব সাইটগুলোর রেফারেন্সের সত্যতা যাচাই করে, তবেই সেই আর্টিকেল বা ব্লগগুলো বিশ্বাস করবেন এবং অন্যের কাছে সেগুলো প্রচার করবেন।

আল্লাহ্‌র কুদরত নিয়ে প্রতারণা

ইন্টারনেটে আরেক ধরণের প্রতারণা হল উল্টোপাল্টা কিছু ছবিকে আল্লাহ্‌র কুদরত হিসেবে প্রচার করা। যেমন, নিচের ছবিটি প্রায়ই ফেইসবুকে মানুষকে প্রচার করতে দেখা যায় যেখানে দাবি করা হয় যে এটি কু’রআনে বলা আ’দ জাতির কংকাল, যারা কি না বিশাল দেহী ছিলঃ

712446_be53_1024x2000

কিন্তু আসলে এই ছবিগুলো বানানো। একটি ফটোশপ প্রতিযোগিতায় এই ধরণের ছবিগুলো বানানো হয়েছিল। গিয়ে দেখুন ফটোশপ দিয়ে কি অসাধারণ সব নকল ছবি তৈরি করা যায়।

এরকম আরও ভুয়া ছবি দেখবেন যেখানে গরুর চামড়ায় আরবিতে আল্লাহ্‌ লেখা আছে, কোনো গাছ সিজদা দিচ্ছে, কোনো ফলের ভিতরে আল্লাহ্‌ লেখা আছে, কোনো পাহাড় দেখলে মনে হবে সে সিজদা দিচ্ছে, আকাশের মেঘে আরবিতে আল্লাহ্‌র নাম ইত্যাদি। এগুলো কোনটাই বিশ্বাস করবেন না এবং অন্যের কাছে ছড়াবেন না।

কু’রআনের উদ্দেশ্য প্রণোদিত অনুবাদ

অনেক সময় কু’রআনের অনুবাদ নিয়েও ব্যাপক প্রতারণা দেখা যায়। যেমন নিচে সূরা আসর এর এই অনুবাদটি দেখুনঃ

By the fleeting time, surely mankind is in continuous loss, except for those who believe, who does righteous deeds, who invite each other to reform and who invite each other to tolerance.

উপরের আয়াতটি যতই সুন্দর মনে হোক না কেন, এটি একটি নকল অনুবাদ। কু’রআনের আয়াতে এমন কোনো শব্দ নেই যা reform, tolerance নির্দেশ করে। এই ধরণের উদ্দেশ্য প্রণোদিত অনুবাদ করে কিছু বিশেষ গোত্র প্রচার করার চেষ্টা করছে যে, ইসলামের অনেক আইনকানুন মধ্যযুগীয়, বর্বর। যেমন, আজকের যুগে হিজাবের কোনো প্রয়োজন নেই; দাঁড়ি রাখাটা ১৪০০ বছর আগের সংস্কৃতি অনুসারে হয়তো প্রয়োজন ছিল, কিন্তু এখন আর নেই; আমাদেরকে সুদের নিয়মগুলো আজকের যুগের অর্থনীতি অনুসারে নতুন করে বিবেচনা করতে হবে; ধর্ষণের শাস্তি মৃত্যুদন্ড আজকের আধুনিক যুগের আইনি অবকাঠামোর সাথে বেমানান ইত্যাদি। এরকম ইসলামের আইনের মধ্যে নানা ধরণের ‘যুগোপযোগী পরিবর্ধন’ এবং ‘অন্যায়ের প্রতি আরও বেশি সহনীয়’ হওয়ার জন্য তারা নানা মতবাদ প্রচার করে যাচ্ছে, এবং তাদের মতবাদের ভিত্তি হিসেবে কু’রআনের বিশেষ কিছু আয়াতকে তারা নতুন ভাবে অনুবাদ করে তা সমর্থন করার চেষ্টা করছে।

আরেক ধরণের প্রতারণা হচ্ছে কু’রআনের আয়াতের অংশ বিশেষ ব্যবহার করে নানা ধরণের মত সমর্থন করার চেষ্টা করা। যেমন, অনেকে দাবি করে ছেলেদের মুসলমানি করে মহান আল্লাহ প্রদত্ত স্বাভাবিক শারীরিক কাঠামোর বিকৃতি করা হয় এবং এর স্বপক্ষে তারা এই আয়াতটি দেখাবেঃ

لَا تَبْدِيلَ لِخَلْقِ ٱللَّهِ

আল্লাহর সৃষ্টির কোন পরিবর্তন নেই। [৩০:৩০]

তাদের দাবি হচ্ছে,  মহান আল্লাহ মানুষকে যেভাবে সৃষ্টি করেছেন, তার মধ্যে কোনো পরিবর্তন করা যাবে না। আপাতত দৃষ্টিতে তাদের যুক্তি সঠিক মনে হলেও, আপনি আসলে এখানে একটি আয়াতের অংশ বিশেষ দেখতে পাচ্ছেন। পুরো আয়াতটি হচ্ছেঃ

তুমি একনিষ্ঠ ভাবে নিজেকে ধর্মের উপর প্রতিষ্ঠিত রাখ। এটাই আল্লাহর প্রকৃতি, যার উপর তিনি মানব সৃষ্টি করেছেন। আল্লাহর সৃষ্টির কোন পরিবর্তন নেই। এটাই সরল ধর্ম। কিন্তু অধিকাংশ মানুষ জানে না।[৩০:৩০]

এখানে মহান আল্লাহ মানুষের ভেতরে এক সৃষ্টিকর্তার প্রতি প্রকৃতিগত আনুগত্য [দেখুন সুরা ইখলাস], ইসলামে যে ব্যাপারগুলোকে ভালো বলা হয়েছে, সেগুলোকে ভালো এবং যে ব্যাপারগুলোকে খারাপ বলা হয়েছে, সেগুলোকে খারাপ মনে করা ইত্যাদি যেসব প্রকৃতিগত বৈশিষ্ট্য দিয়ে তিনি মানুষকে সৃষ্টি করেছেন, সেটার যে কোনো পরিবর্তন হয় না, সেটাই তিনি এখানে নির্দেশ করেছেন। আল্লাহ মানুষকে এমন ভাবে প্রোগ্রাম করে সৃষ্টি করেন যে, তার সত্যের প্রতি স্বভাবগত আকর্ষণ সবসময় থাকে, যতক্ষণ পর্যন্ত না তার বাবা-মা, সমাজ এবং সংস্কৃতি তার মগজ ধোলাই করে না ফেলে। এই হচ্ছে এই আয়াতের প্রকৃত অর্থ। এখানে শারীরিক গঠনের কোনো ইংগিত নেই। [তাফসিরঃ মারিফুল কু’রআন পৃষ্ঠা ৭৪০, তাফহিমুল কু’রআন ৩০:৩০, তাফসিরঃ আল-জালালাইন ৩০:৩০]

বিশেষ গোত্রের ওয়েবসাইট

আরেক ধরণের প্রতারণা হল, আপনি মাঝে মাঝে কিছু ইসলামিক ওয়েবসাইট পাবেন,যাতে চমৎকার কিছু ইসলামিক আর্টিকেল দেখতে পাবেন যেগুলো আপনার কাছে মনে হবে ‘ভালোই তো’, কিন্তু এরই মধ্যে এমন কিছু আর্টিকেল পাবেন, যেগুলো বিতর্কিত এবং এক বিশেষ গোত্রের মতবাদ প্রচার করে, যা সংখ্যাগরিষ্ঠ মুসলিম আলেমরা মেনে নেননি। এধরণের ওয়েবসাইটগুলো দেখে আপনি কোনোভাবেই বুঝতে পারবেন না যে, সেই সাইটগুলো আসলে কোনো বিশেষ গোত্রের ওয়েবসাইট, যাদেরকে সংখ্যাগরিষ্ঠ মুসলিম উম্মাহ বর্জন করেছে। তাদের সব আর্টিকেলই দেখে মনে হবে যে, তারা সংখ্যাগরিষ্ঠ মুসলিম জাতির প্রতিনিধি, কিন্তু ভালো করে খোঁজ নিলে দেখবেন আসলে তারা হয়তো আহমেদিয়া বা কাদিয়ানী বা কুরানিস্ট।

ইসলামের অপপ্রচারে কোটি কোটি টাকার বাজেট

ইন্টারনেটে প্রতারকের কোনো অভাব নেই এবং ইসলাম নিয়ে প্রতারণার কোনো শেষ নেই। প্রতি বছর শত শত অমুসলিম সংগঠন কোটি কোটি টাকার বাজেট খরচ করছে ইসলামের বিরুদ্ধে ভুয়া, হিংসাত্মক, অশ্লীল, চমকপ্রদ, অলৌকিক তথ্য দিয়ে ইন্টারনেট ভরে দিতে, যা পড়ে মুসলিম এবং অমুসলিম উভয় মানুষরাই ব্যপক বিভ্রান্ত হয়ে ইসলামের প্রতি আস্থা হারিয়ে ফেলে। শুধুমাত্র আমেরিকাতেই নিচের বিখ্যাত দাতা সংগঠনগুলো ২০০১-২০০৯ সালের মধ্যে ৪২.৬ মিলিয়ন ডলার অনুদান দিয়েছে বই, ওয়েবসাইট, টিভি প্রোগ্রাম, চলচ্চিত্র, ইউটিউব, ফেইসবুক এর মাধ্যমে আমেরিকায় এবং সারা বিশ্বে মানুষের মধ্যে ইসলামের প্রতি আতংক ছড়িয়ে দিয়ে, ইসলাম যে একটি মধ্যযুগীয়, বর্বর, ‘টেররিস্ট বানানোর ধর্ম’ – মানুষের মধ্যে এই ভুল ধারনাগুলো বদ্ধমূল করে দেবার জন্যঃ

  • Donors Capital Fund
  • Richard Mellon Scaife foundations
  • Lynde and Harry Bradley Foundation
  • Newton D. & Rochelle F. Becker foundations and charitable trust
  • Russell Berrie Foundation
  • Anchorage Charitable Fund and William Rosenwald Family Fund
  • Fairbrook Foundation

Democracy Now এর নিচের ভিডিও ইন্টার্ভিউটি দেখলে এবং এই রিপোর্টটি পড়লে বুঝতে পারবেন, কত ব্যাপক ভাবে মানুষের মধ্যে ইসলামের প্রতি ভীতি প্রচার করার জন্য এবং মুসলিমদেরকে কোণঠাসা করে রাখার জন্য সরকারের উচ্চপদস্থ নেতা থেকে শুরু করে, বিলিয়নীয়াররা পর্যন্ত সংঘবদ্ধ হয়ে কাজ করে যাচ্ছে।

মনে রাখবেন, ইন্টারনেট হচ্ছে শিক্ষিত এবং অত্যন্ত দক্ষ প্রতারকদের জায়গা। এখানে সর্বাধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করে, সবচেয়ে মোক্ষম ভাবে মানুষকে প্রতারিত করা হয়, যেটা অনেক শিক্ষিত, আধুনিক মানুষও ধরতে পারেন না। আপনি নিজেকে যতই বুদ্ধিমান, আধুনিক, বিবেচক মানুষ মনে করুন না কেন, বছরে কয়েক কোটি টাকার বেতন দিয়ে পিএইচডি করা স্কলারদের রাখা হয়েছে, যাদের কাজই হচ্ছে ভুয়া ইসলামিক আর্টিকেল লিখে মুসলমানদেরকে বোকা বানানো, ইসলামের বিরুদ্ধে ভুল তথ্য প্রচার করে বিধর্মীদেরকে মুসলিমদের বিরুদ্ধে উস্কে দেওয়ার জন্য বই লেখা, সারা পৃথিবীতে ইসলামের বিরুদ্ধে লেকচার দিয়ে বেড়ানো এবং বিভিন্ন দেশের রাজনৈতিক ব্যক্তিদেরকে মগজ ধোলাই করা, যাতে করে তারা ইসলামের বিরুদ্ধে সংঘবদ্ধ হয়। এদের বই, আর্টিকেল, ওয়েবসাইট, লেকচারে মগজ ধোলাইয়ের শিকার হয়ে অনেক শিক্ষিত, ধার্মিক মানুষ ঘোরতর নাস্তিক হয়ে গেছে। সুতরাং সাবধান!

প্রতারণামূলক ওয়েবসাইট

নিচের ওয়েবসাইটগুলো দেখে যদিও মুসলিমদের ওয়েব সাইট মনে হয়, কিন্তু এগুলো হয় ভুয়া ওয়েবসাইট, যেগুলো হয় মুসলিমদের নাম দিয়ে প্রচার করা হচ্ছে, না হয় এগুলো বিশেষ কিছু বিতর্কিত মতবাদ প্রচারের ওয়েব সাইট। ইন্টারনেটে ঘুরে বেড়াবার সময় ভুলেও এই সাইটগুলোতে যাবেন না। এমনকি ইন্টারনেটে অনেক ভুয়া কু’রআনও পাওয়া যাচ্ছে! এছাড়াও আইফোনে, এন্ড্রয়েড মোবাইল ফোনে ভুয়া কু’রআনের উপর app পাওয়া যায়।

এখানে আমি এমন কিছু ওয়েব সাইটের নাম দিলাম যেগুলো সাধারণত গুগল সার্চে প্রায়ই আসে এবং এদেরকে দেখে সহজে বোঝা যায় না যে এগুলো ইসলাম বিরোধী ওয়েবসাইট। এরকম শত শত ওয়েব সাইট রয়েছে যেগুলো আপনি গিয়ে একটু ভালো ভাবে চিন্তা করলেই বুঝতে পারবেন তারা আসলে ইসলাম বিরোধী।

উপরের লিংকগুলো অনুগ্রহ করে ক্লিক করবেন না।

এখন আপনার মনে প্রশ্ন জাগে, কেন মানুষ এরকম উঠে পড়ে লেগেছে ইসলামের বিরুদ্ধে? এতো কোটি কোটি টাকা খরচ করে কার কি লাভ হচ্ছে? এর অন্যতম কারণ হচ্ছে পৃথিবীতে মুসলিমরা ‘আশঙ্কাজনক’ হারে বাড়ছে। বর্তমানে পৃথিবীতে ১.৭ বিলিয়ন মুসলিম, খ্রিষ্টান ২ বিলিয়ন। যেভাবেই হোক মুসলিমদের সংখ্যা গরিষ্ঠ হওয়া বন্ধ করতে হবে। না হলে খ্রিষ্টান ধর্ম এবং তাদের কোটি কোটি ডলারের বিশাল চার্চ বাণিজ্য ব্যাপক ক্ষতির মধ্যে পড়বে। দ্বিতীয় কারণ শারিয়াহ আইন বন্ধ করা। যদি শারিয়াহ আইন কোনো দেশে প্রচলিত হয়, তাহলে মদ, জুয়া, সুদ ইত্যাদি বন্ধ হয়ে যাবে। শুধুমাত্র ব্রিটেনেই বছরে ১৭ বিলিয়ন পাউন্ডের বিয়ার বিক্রি হয়। ইসলাম প্রতিষ্ঠিত হলে এই সব হারাম ব্যবসার শেয়ার হোল্ডার শত শত বিলিয়নিয়ার এবং হাজার হাজার মিলিয়নিয়ারের ব্যাপক ক্ষতি হবে। সামরিক অস্ত্র তৈরির পিছনে জড়িত হাজার কোটি ডলারের বাণিজ্যে ব্যাপক ধ্বস নামবে। প্রচলিত হারাম ব্যাংকগুলো বিলিয়ন ডলারের ক্ষতিতে পড়বে। এজন্য মাত্র কয়েক শ মিলিয়ন ডলার খরচ করে ইসলামের প্রচারে বাধা দিতে পারলে এবং শারিয়াহ নিষিদ্ধ করে মানুষকে ইসলামিক আইন মানা থেকে দূরে সরিয়ে রাখতে পারলে শেষ পর্যন্ত বিলিয়ন ডলারের লাভ করা যায়। একারণেই পৃথিবীর অনেক বড় বড় মিলিওনিয়ার এবং বিলিয়নিয়াররা কয়েক শ মিলিয়ন ডলার বাজেট বরাদ্দ করে রেখেছে ইসলামের বিরুদ্ধে যে সংগঠনগুলো কাজ করে যাচ্ছে, তাদেরকে যথাসাধ্য অর্থনীতিক সাহায্য দেওয়ার জন্য, কারণ সেই বিলিয়নিয়ারদের কাছে এটা একটি লাভজনক লঙ টার্ম ইনভেস্টমেন্ট।

Print Friendly

About ওমর আল জাবির

কু'রআনকে গভীরভাবে ভালবাসি। সত্যকে জেনে, তা নিজের জীবনে বাস্তবায়ন করে অন্যদেরকে অনুপ্রেরণা দেবার চেষ্টা করি।
This entry was posted in আজকাল. Bookmark the permalink.

90 Responses to শেখ্‌ Google হতে সাবধান

  1. চমতকার লেখা। খুবই কাজের। ধন‍্যবাদ

  2. mrittu says:

    mashAllah.

  3. SFMECH says:

    very much informative. Thank you so much .

  4. M says:

    Assalamualikum Brother, can you please compile and keep a list of fake websites in a post ? The links you have been given kind if give themselves away if you read them. But there are others, more dangerous.

    A constantly updated risk will he helpful for all.

    Jazak Allah

  5. অনেক কিছু জানলাম, শুকরিয়া।
    http://www.wikiislam.net যে প্রতারণামূলক সাইট, জানতাম না একদম। দুয়েকদিন ঢু মেরেছিলাম :(

  6. Shaheen Reza says:

    Thanks… Very informative and timely write-up! May Allah accept your effort, and shows us the right path…

    Recently some pictures/links are available in fb/Internet, which are described as daily used materials by Hazrat Muhammad (pbuh)… I really don’t understand it’s authenticity, and purpose of share…

  7. Kaisar Mahmud says:

    Thank you for the information. Brilliant research :)

  8. Kaisar Mahmud says:

    The pictures of Facebook which were edited. I was a bit confused of those. Now I know what they are. Thank you for opening my eyes :)

  9. unknown says:

    আপনিও যদি দালাল না হন তবে শিগগিরই আপনার এ প্রচারনাও বন্ধ হয়ে যাবে, যেকোন কারনে। ইন্টারনেট যে মার্কিন যুক্তরাষ্ট চালায় তা তো জানেনই। মুসলমানের ধ্বংস অবসম্ভ্যাবী। তবে তা যতটা সম্ভব রোধের চেষ্টা করাটাও জরুরী। কিন্তু মেধাবী মুসলমানরা একথাটা মনে রাখে না যে With great power comes great responsibilities.

    • ওমর আল জাবির says:

      ইন্টারনেট যুক্তরাষ্ট্র চালায়! একারণেই তো পেন্টাগন হ্যাক হয়ে যায় এবং উইকিলিক্স-এ সিআইএ-র সিক্রেট ডকুমেন্ট পাওয়া যায়।
      Open your eyes, Neo.

    • sadman says:

      wake up neo,wake up

    • Md. Monirul Islam Shawn says:

      ইন্টারনেট যুক্তরাষ্ট্র চালায়! from where on earth did you get this information ?? firstly gain your knowledge properly and then comment … as brother Omar said, open your eyes …

  10. Saleh Masum says:

    That is so much informative. Thank you for writing such an informative article.

  11. মোঃ রাকিবুল ইসলাম says:

    ধন্যবাদ সত্যটা উপস্থাপনের জন্য।

  12. Ashraf Ahmed says:

    Thank you for this nice article. May Allah give you better jajja(reward)…

  13. Prince says:

    Excellent!
    May Allah help you enlighten the ignorant people.

    Thanks you!

  14. sayed maynul haque says:

    যাযাকাল্লাহ খাইরান।
    সুন্দর পোস্ট। একটি খুব গুরুত্তপূর্ণ বিষয় তুলে ধরেছেন। আমার প্রশ্ন হচ্ছে এসব ভুয়া ওয়েবসাইট সাধারণ মানুষের পক্ষে চেনার কি কোন উপায় আছে?

    • ওমর আল জাবির says:

      ইসলামের মৌলিক ব্যাপারগুলো সম্পর্কে যথাযথ জ্ঞান থাকাটা জরুরি। না হলে সহজেই প্রতারণার শিকার হয়ে যায়। একারণেই আল্লাহ আমাদেরকে কু’রআনে কমপক্ষে ৬৭ বার চিন্তা করতে, বিচার-বুদ্ধি ব্যবহার করতে বলেছেন।

  15. ফরিদ মিঞা says:

    সাবলিলভাবে সত্যটা আমাদের সামনে তুলে ধরেছেন।

    আল্লাহ আপনার উত্তম প্রতিদান দিন এবং ইসলামকে যথাযথ অনুশীলন করার তাওফীক দিন, আমীন।

  16. Mahmudul Hassan says:

    অত্তন্ত গুরুত্তপুরন একটি লিখা…তবে এই লিখার সাথে যদি সহিহ বা সঠিকভাবে ইসলাম কে বরননাকারি কোন লিঙ্ক দিলে আরো উপকার হতো ! জ়াজ়াকাল্লাহ খাইরান…

  17. ওমর আল জাবির thanks for important information. নিচের ছবিটি প্রায়ই ফেইসবুকে মানুষকে প্রচার করতে দেখা যায় যেখানে দাবি করা হয় যে এটি কু’রআনে বলা আ’দ জাতির কংকাল, যারা কি না বিশাল দেহী ছিল. i also confused about this picture. thanks again for give me true information.

  18. mostakim says:

    Excellent!
    Many Many Thanks for this informative article.

    Best Regards,
    Mostakim

  19. ruddro600@yahoo.com says:

    Dear Mr.Jabir Bro,
    i try to read your articles. Alhamdulillah, may Allah give us right knowledge and way to achieve His satisfaction.

  20. Saif Uddin says:

    Please add me for your posts, thanks.

  21. Unknown says:

    যারা না যেনে আমার “ইন্টারনেটের নিয়ন্ত্রন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হাতে”কথাটার প্রতিবাদ করেছেন তাদের জন্য।-
    http://www.google.com/url?q=http://www.kalerkantho.com/%3Fview%3Ddetails%26type%3Dgold%26data%3DTax%26pub_no%3D1084%26cat_id%3D2%26menu_id%3D0%26news_type_id%3D3%26index%3D28%26archiev%3Dyes%26arch_date%3D07-12-2012&sa=U&ei=ELGEUeCFPIjzrQfUu4HADg&ved=0CBwQFjAB&sig2=HZqMognC_J_FKu6IZrq_8w&usg=AFQjCNHa9PdQkr5IBO1P4XWuN1GwA76NjQ

  22. Nilufar Yasmin says:

    ফেবু তে ছবি দেখে আগে সন্দেহ হত আমার! এখন ক্লিয়ার হলাম। আরো অনেক বেশি কিছু জানতে পেরে ভালো লাগছে। আশা করি ভবিষ্যতে ইসলামের প্রকৃত বিধিবিধান নিয়েও জানতে পারব। ধন্যবাদ।

  23. abu yousuf hejaji says:

    আপনার মত অন্যরা এগিয়ে এলে আমাদের মত ইন্টারনেট ব্যবহারকারী সহজ সরল মানুষ গুলো বড়ই উপকৃত হত। এ ব্যাপারে আপনার চেষ্টা দয়াকরে অব্যাহত রাখবেন। আল্রাহর কাছে আপনি অবশ্যই এর জন্য পুরুস্কার প্রাপ্ত হবেন।

  24. Bijutoha says:

    তোমার লেখাটি গবেষনালব্ধ এবং পড়ে ভাল লাগল। তবে একটা বিষয় বলতে চাই কিছুদিন পূর্বে আমি নিজ চোখে দেখেছি একটি গোস্তে আল্লাহ শব্দটি আরবীতে লেখা তবে খুব একটা পরিষ্কার না। আমাদের মসজিদের ইমাম সহ হাজার মুসুল্লী তা দেখেছে এবং সবাই বলেছে যে, এটা আল্লাহ শব্দ।
    এটাই আমার জীবনের বাস্তব অভিজ্ঞতা। আচ্ছা তুমি কি বলতে চাও যে, “giant human skeleton found in saudi arabia” এই বাক্যটি দ্বারা গুগলে যত ইনফরমেশন আসে সবই মিথ্যা ?

    ভাই তোমাকে তুমি করে বল্লাম কিছু মনে করনা। সত্যিই তোমার লিখাটি যেমন আমাকে আকৃষ্ট করেছে তেমনি আমি আরোও দ্বিধাগ্রস্থ হয়ে পড়েছি।

  25. Bijutoha says:

    যেহেতু তোমার শর্ত মোতাবেক একাধিক প্রশ্ন একটি কমেন্টে প্রযোজ্য নয় তাই আবারও লিখছি । তুমি তোমার প্রবন্ধে লিখেছ উপরের ” লিংকগুলো অনুগ্রহ করে ক্লিক করবেন না।” এটা কেন লিখেছ তা কিন্তু বলনি ?

    • ওমর আল জাবির says:

      ওগুলো সব ইসলাম বিরোধী ওয়েবসাইট। তারা ইসলামকে ব্যাখ্যা করছে বলে বরং অপব্যাখ্যা করছে। ওদের আর্টিকেলগুলো কেন ইসলাম বিরোধী, তাদের যুক্তিতে কি ভুল আছে, সেগুলো আলোচনা করতে গেলে বিরাট আর্টিকেল লিখতে হবে। আমি বছর খানেক ওদের আর্টিকেলগুলো পড়ে কাফির হয়ে গিয়েছিলাম। পড়ে একসময় কু’রআন নিজে পড়ে, আরবি শিখে বুঝতে পেরেছি ঘাপলা কোথায়।

      • Abdulla says:

        Same thing happened to me. Suddenly I am no longer a believer…….. Even it sounds ridiculous to me that, all the muslims have a same complain that everyone of world tries to manipulate, fabricate islam/muslim/islamic laws… and tries to misguide muslim people. I agree with you partially to some extents but not totally. but In the same way other religious ppl can have same complain. Actually religiously, Islam nullifies all other religion. No other religion do it….by ‘nullify’ i didnt mean killing……… needs a discussion, i m skipping….. just to say, if u think u are right, all others are wrong, then it is very difficult to live with different ppl . To my view and travel, most of the advanced countries do not have any conscious about the thinking of muslims or like u. they are doing their research. some muslims try to add hoax . like ajan in moon, name of prophet Md. (sm) in Mars……..so on……. countless…..

        Another common complain is so called “authenticity”. U already suggested to study proper meaning, also u answered that if you wanna go to rectify the posting of so called islamic site’s with proper islamic knowledge, it will be big or need lot of time or something like that. I can guarantee u that even if u take 5 Alems of islam to rectify those errors, 50 alems from other part of the world will say “This is also not right”…..So what is the term “authentic” u actually mean?

        Your post is actually to prevent readers from anti-islamic sites and activities. Which is the same way islam tries to stop other issues of free logical thinking….which i wanted to mean in my 1st paragraph.

        • ওমর আল জাবির says:

          There are several points in this post. So, let me try to address them one by one.
          1. Those who think they are the only ones who are right and everyone else is wrong, haven’t reached maturity in knowledge, not even in Islamic Knowledge. A beginner in Islamic knowledge thinks he knows it all, an intermediate one thinks that he is right in all his opinions and an advanced one realizes that there are so much more to explore that he can never say he is really correct in all his opinions and he respects that others might know better.
          2. If you get 5 or 500 ‘Alims to rectify those errors, they will come up with same opinion on 95% issues, but they will differ in 5% issues. We always lose sight of how much is common, universally agreed among Ulamas. We only focus on the difference of opinions and blow them out of proportion.
          3. My article is not to stop readers from reading alternative views. If I did that, I would have to reject 95% of websites on the web. My attempt is to prevent readers from getting confused from intentional sabotage attempts, that are funded and directed by hate monger organizations.

          • Dream Catcher says:

            With all due respect, how do you know “…they will come up with same 95% issues, but they will differ in 5% issues.”? Have you done any study? Have you published it in a peer reviewed journal or anything? Even if you were true 5% was still lethal and more than enough for provoking violent actions that kill and suppress free thinking and imagination. You people make lots and lots of fallacious comparisons. Do you have any idea what a fallacy is? Start studying, please. Religion is about belief/faith, NOT about reason and logic. Try to understand that first. Yours one is also a kind of propaganda.

          • ওমর আল জাবির says:

            “Start studying, please. Religion is about belief/faith, NOT about reason and logic” – if you have read Quran once cover to cover, you wouldn’t be saying this. Clearly you haven’t, with understanding, so no point arguing. We have to be on a common ground to argue on a matter.

            Also probably I can ask the same thing, “Have you done any study? Have you published it in a peer reviewed journal or anything?”

            On the other point, I think you have to read the definition and the classifications of propaganda a bit more, before you use this word. My article’s method is: “here’s some evidence, and here’s the conclusion”. This mode of discourse doesn’t classify as propaganda.

            But I admit, I should have collected all the differences of opinions that all scholars of Islam from all sects have by interviewing them and collecting all their written materials, then quantify them, and then collect all the matters where they agree by following the same method of interview and analysis of their published texts, and then quantify them, then calculate % out of it and then claim 5% or some x%. Thanks for the pointer.

            I would recommend a debate on this that you might find informative:
            http://www.youtube.com/watch?v=Jy9tNyp03M0

            This will be my last response on this thread. May Allaah grant you peace in your heart.

          • Dream Catcher says:

            Dear Brother,
            I’m not here to fight. There is nothing to lose or win. We’re just trying to communicate. Right? As a co-author a paper has been accepted in a peer-reviewed journal. Currently, I’m a graduate research assistant at an American university doing research in planetary geology/geochemistry, a branch of planetary science, of Titan, the largest moon of Saturn. The professor who is guiding me was able to publish a paper in Nature (the flagship one which is the most authoritative journal of science on the planet Earth, NOT Nature Geosciences or the like) on Mars even before her Ph.D. So, I think I know what I’m talking about.

            You wrote “বর্তমানে পৃথিবীতে ১.৭ বিলিয়ন মুসলিম, খ্রিষ্টান ২ বিলিয়ন।”. Where is the reference? I have one: http://www.pewforum.org/global-religious-landscape-exec.aspx. And I’m skeptic about this one too. Do you have a better reference. Please, lemme know. I’d be greatly indebted to you. As for propaganda, I think I know it. Simply put, you mix truths with lies to promote a particular cause. I just don’t memorize things. I think. Because, I assume, even though my senses feeble, I’m nothing but a thinking reed. I assume you did it inadvertently. But, brother, this IS a kind of propaganda. Please, do something that does not incite violence. You see Rohingya’s are being persecuted in Burma. What are YOU doing about it? You see Hindus are being intentionally persecuted in Pakistan and Bangladesh. Minority percentage has dropped alarmingly in both of these predominantly Muslim country (Please, do dig more about it for yourself. I don’t have time). I think you’re a wonderful human being who trying to live a meaningful life. Please, try to address issues like misuse of religion. ISLAM is GROWING. You muslims keep doing good works you’ll do Islam a great favor. But, this is NOT the way to do it. Good Luck, my brother!

          • ওমর আল জাবির says:

            I wasn’t referring to your ability to write papers. I was referring to your past achievement on writing papers about the point you made: “Religion is about belief/faith, NOT about reason and logic”. I wanted to see if you have written any paper on this where you have reached that conclusion. If you read Quran cover to cover once, I think you will realize there are over 67 times Allaah has commanded us to use reason, use intellect, not to blindly follow or believe our forefathers etc. In fact, I have an article on this:
            আল্লাহর কাছে চিন্তা ও বিচার-বুদ্ধির গুরুত্ব
            http://blog.omaralzabir.com/2012/07/24/important-of-thinking/

            The reference for 1.8 billion Muslims is at easy reach: http://en.wikipedia.org/wiki/Muslim
            And 2.2 billion Christianity is also at easy reach: http://en.wikipedia.org/wiki/Christianity_by_country. Look at the total at the end of the table. I admit I missed 0.2B.

            That video wasn’t about Richard Dawkins, that’s another video. This one is about violence in Islam. Please take a look again. And your comment about spreading violence through this article is unfounded, since this article is all about informing Muslims about some important facts.

            About Rohingya, Syria, poor people in Bangladesh, I don’t need to tell you what I have done for them. You will learn when we will meet on the Judgement Day what a significant amount of my wealth I have given away.

            Now, with this, I conclude and no further discussion will be accepted on this topic. This has become a show of ego and contest of “I am right, you are wrong”. I have entertained many with such debates before and there’s no end of it. I no longer wish to entertain in discourse that benefits no one.

          • Dream Catcher says:

            I’am reading the Holy Qur’an from this site: from cover to cover — 114 chapters, 6,226 verses, 99,464 words, 330, 113 letters.

            Please, correct me if I’m wrong. And, do you know this is a good translation. One of my muslim brothers told me that to understand the Holy Qur’an you’ve to read the tafsirs. However, I find it very difficult to pick up the right one because there is every chance that they are equally misinterpreted, for they are not the Holy Qur’an itself. They have been produced by humans. Can you please clarify this?

            http://quran.ksu.edu.sa/index.php?l=en#aya=2_38&m=hafs&qaree=husary&trans=en_sh

          • ওমর আল জাবির says:

            I would recommend “The Message of the Quran” by Muhammad Asad. It’s translation is natural and very close to the original Arabic and some of the verses have explanation, which makes it easy to understand verses that people tend to miss the depth from a shallow reading.

            http://www.usc.edu/schools/college/crcc/private/cmje/religious_text/The_Message_of_The_Quran__by_Muhammad_Asad.pdf

        • Dream Catcher says:

          1. About logical reasoning:
          When your holy book talks about logic it might refer to deductive and abductive reasoning at best. Inductive reasoning cannot make a part of logic. Now, you should study more to know what logical reasoning is. If you really do, then you will see deductive and abductive reasoning do not work in many cases.

          2. Wikipedia as a reference:
          I assume you’re trying to do research. Therefore, you should know wikipedia is NOT a VALID reference.

          3. The Video:
          There are multiple videos associated with it. Richard’s was one of them. And, I have watched Mehdi Hasan’s too.

          4. Violence: I say it again. When you say 5% differ, it means your statement is potent enough to create confusion leading violence.

          5. Rohingya:
          I’m proud of you. I wish I could join you to help them out.

          GOOD LUCK!

          • Dream Catcher says:

            ERRATUM: Sorry, I should clear up the point 1: Inductive reasoning does not work for religion. So. LOGIC should be RELIGION in the second sentence.

  26. Sumon says:

    আমি আগে থেকেই ইসলামিক জ্ঞান এর জন্য বই পুস্তক খুব সাবধানে বাছাই করে পড়ি। ইন্টারনেট ইউজ করিনি এই ব্যাপার টা মাথায় রেখেই, কারণ খোলা বিশ্ব, নানান মতাবাদ আর বিধর্মীদের কৌশলে ইমান নষ্ট হয়ে যেতে পারে। এখন থেকে আরও সাবধান হয়ে গেলাম।

    আল্লাহ, আপনার এই কষ্টকর কিন্তু উপকারী কাজ টার জন্য আপনার উপর রহমত নাযিল করুন, দোয়া রইলো ভাই। আর এই মেহনতি কাজ, দয়া করে চালিয়ে যান। আল্লাহ আপনার সয়াহ হোক, আমীন।

    • ওমর আল জাবির says:

      বাজারের বইগুলোতেও একই ধরণের প্রতারণা হয়। বইয়ের মাধ্যমে প্রতারণার পরিমাণ ইন্টারনেটের চেয়ে কোনো অংশে কম নয়, কারণ গত হাজার বছর ধরে প্রতারকরা বই লিখে আসছে।
      যেমন দেখুনঃ
      http://blog.omaralzabir.com/2012/12/03/fabricated-hadeet/

  27. Md. Lahabur Rahman says:

    খুব ই প্রয়োজনীয় একটা topic, thank you so much

  28. Farhan Asif says:

    আসলে সকল ইসলামী তথ্যই বই পুস্তকে সম্পূর্ণ অবিকৃত ও পূর্ণ অবস্থায় মোটামুটি সকল ভাষায় অনুদিত। তাই, আমার মনে হয়, আমাদের বই এর প্রতি বেশি মনোযোগী হওয়া উচিত, যদিও সবাই এখন অনলাইন এ বেশি অভ্যস্থ …

    • ওমর আল জাবির says:

      বাজারের বইগুলোতেও একই ধরণের প্রতারণা হয়। বইয়ের মাধ্যমে প্রতারণার পরিমাণ ইন্টারনেটের চেয়ে কোনো অংশে কম নয়, কারণ গত হাজার বছর ধরে প্রতারকরা বই লিখে আসছে।
      যেমন দেখুনঃ
      http://blog.omaralzabir.com/2012/12/03/fabricated-hadeet/

  29. Afzal says:

    As an EX-AIUBIAN i have always admired your writing… Thank you for another quality post. You are an inspiration. May ALLAH bless you and your family.

  30. JewelOsman says:

    আসসালামু আলাইকুম, ধন্যবাদ আপনাকে। আপনার এই লেখাটি বর্তমান সময়ে মুসলিমদেরকে বিভ্রান্তি থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য কিছুটা হলে ও সাহায্য করবে। আল্লাহ আপনার জ্ঞানকে আরো প্রসারিত করে দিন এই দোয়াই করি।

    • man says:

      মওদুদী মতবাদ(বহুল প্রচলিত) সম্পর্কে জানাবেন কি ?

      • asif says:

        Brother, there is nothing like moududi motobad. Like many of the scholars he did some major mistakes like criticizing sahaba which is prohibited according to the creed of ahle sunnah, at the same time he did some extraordinary works in the field of islam. His book ‘understanding quran’ is an epic. May Allah forgive his mistakes and accept his good deeds.

  31. Omar Sharif says:

    Sura Asor -er bikritho onubad (Apnar Vashai) disen ….pokritho onubad den nai keno ???
    Apni j Manush-er maze Vibranto srishti kortesen na tar porman ki ??!…..

    • ওমর আল জাবির says:

      ভালো প্রশ্ন। আমিও যে ওই সব বিলিওনিয়ারদের কাছ থেকে টাকা খেয়ে মানুষকে প্রতারণা করে বেড়াচ্ছি না, সেটা কিভাবে বুঝবেন? বুঝতে হলে আপনাকে ইসলাম নিয়ে ভালো করে পড়াশুনা করতে হবে। শুরু করে দেন। ইন শাআ আল্লাহ্‌ একদিন আপনি বুঝতে পারবেন আমার উদ্দেশ্য কি।

  32. dib says:

    Sir, islam mane peace..thn why ppl r doing jihaad in name of allah..allah created man to make universe better,thn why some some ppl doing terrorist activity in name of allah, those who got vicyim they also muslim hindu christ etc Today there are more number of muslim is victimized by terror in muslim country than non muslim country countless mosque is getting destroy in muslim country than non muslim country. Either those ppl dont understand islam thats why thy telling in the name of allah or they r making full all other muslim.our president abul kalam ajad was also muslim. I thnk proper education can eradicate this confusion..

    • ওমর আল জাবির says:

      I agree with you that there’s mass confusion about the meaning of the word ‘Jihad’ where many muslims are brainwashed into thinking that Jihad means fighting, holy war, which it is not.

      However, the other misunderstanding is thinking Muslims are majority of the terrorist and other religions are more peaceful than Islam. Please see the terrorist section in my post:
      http://blog.omaralzabir.com/2012/09/11/why-did-allaah-do-this-part-2/

      I have given you some statistics that will show you how media manipulates us.

  33. Abu Sami Mahmud says:

    oli awlia torikot nea apner statement ki?

    • ওমর আল জাবির says:

      জিনিসটা কি?

      • Abu Sami Mahmud says:

        পীর,ফকির, বিভিন্ন তরিকা(কাদেরিয়া,চিশ্তিয়া,নকশাবন্দিয়া, মুজাদেদিয়া)মাজহাব(হানাফি,শিফিই,হাম্বলি,মালিকি) সম্প্রকে ইসলাম কি বলে?

        • Abu Sami Mahmud says:

          আর একটা বিশয় ওহাবী কারা?

          • Abu Sami Mahmud says:

            omar vai ekta kotha boli. asha kori positively niben. apner uddesho khub mohot kono shondeho nai . apner kono dharona , montobbo , explanation jodi vul thake kintu keu jodi oi dharonate motivated hoye vul kore shei bojha apnake bohon korte hobe . abar sothik holeu shei puroshkar Allah apnake diben. asha kori jekono kisu boler khetre aro shotorko thakben(ami bolchi na j apni vul bolchen othaba sothik bolchen)…. Huzur Pak Muhammad (SW) bolechen shesh jamanay islam 73 dole vag hobe ekta thakbe khali sothik. tar mane dominating kora islami dolgulai hobe vul pother … valo thakben

          • ওমর আল জাবির says:

            ধন্যবাদ, সতর্ক করে দেওয়ার জন্য। ডমিনেটিং দলগুলো ভুল পথের হবে – এটার রেফারেন্স দিবেন কি?

          • Abu Sami Mahmud says:

            i cant see any reply button for ‘ধন্যবাদ, সতর্ক করে দেওয়ার জন্য। ডমিনেটিং দলগুলো ভুল পথের হবে – এটার রেফারেন্স দিবেন কি?’
            so eikhanei boli ami kono kisu proman korte chaina shei poriman gyan amar nai.. 73 doler modhe 72 dol vul akidaa thakle to shetai dominating naki?

          • ওমর আল জাবির says:

            If there are 72 sects, it does not mean either one of them or all of them together are dominating. It is possible that the one sect, which is on the right path, is the most dominating. They can out number all other 72 sects together.

  34. Md. Maksudur Rahman says:

    kintu ami jonmo shutre muslim howar por bsc er last year e Dr. Zakir naik er lecture dekhar por mone holo je ami jene shune muslim. er por theke peace tv er lecture shunte shunte ekhon website or book jetai dekhi automatically bujte pari je eta sohi naki golod ache. karon ami ta bichar kori Quran and hadis diye. Zabir vai amar jonno doa korben jate shothik islam bujhe amol korte pari.

  35. Md. Monirul Islam Shawn says:

    salam bhaia …
    i have no words 2 praise your writings or your intention … r apnar jonno toh duah kori ee … just bolte ashlam, amar jonno duah korben … :)

  36. md masud says:

    I always your fan of your blog’s just a small request to you can you please clarify to me about the marriage of our beloved prophet Muhammad (peace be upon on him) with ayesha (rd) in her age of 9 .I live in Scotland and my gf she asked me that question is how logical is that .I can’t answer her coz I don’t have any proper answer for her.will you plz help me in that case …thanx assalamualikum

  37. Md. lkairul kabir says:

    ধন্যবাদ
    আল্লাহ আপনার জ্ঞান প্রসারিত করুনন।আ্পনার লেখার মাধ্যমে আমাদের অনেক ভুল ভ্রান্তি দূর হল। আমাদের সবাই কে জ্ঞান চর্চা করতে হবে। তাহলে সঠিক এবং ভুল বুজতে পারব। আল্লহ আমাদের সবাই কে তফিক দান করুন জ্ঞান অর্জন করার ।

  38. nafSadh says:

    কিছু রিলায়েবল অনলাইন সোর্সের খোঁজও যোগ করলে ভালো হতো মনে হয় । আমি মূলত তানজিল, কুরআন.কম (ও এর সহযোগী সাইট), নোমান আলী খান ইত্যাদিকে বিশ্বাসযোগ্য মনে করি । আপনার ভাষ্য কী?

  39. Nafis Shahriar says:

    Ami 1ta Famous Islamic Pager Admin. Page tar fan 27,000. But nam ta ullekh korlam na. Amk onek nastik, even Muslim rao bivinno dhoroner confusing ques kore. eder moddhe 1tar ekhon ans jante chachi. Ques gula amr PC te type kora ase. So ques ta holo- আল্লাহ্ মানুষকে সৃষ্টি করেছেন পরীক্ষার জন্য। আর আল্লাহ সবকিছুই জানেন, সবকিছুই পারেন। হিদায়াতও দেন আল্লাহ্। তার অজানা কিছুই নেই। তাহলে যে পরীক্ষার ফলাফল আল্লাহ্ জানেনই, তা নেয়ার দরকার কি?

  40. S. Alam says:

    আসসালামু আলাইকুম
    হঠাৎ আপনার পেজের লিন্কটা দেখে আপনার পেচটা দেখলাম। প্রায় সবগুলো টপিকস পড়লাম। খুব ভালো লাগল। মহান আল্লাহ আপনাকে উত্তম প্রতিদান দিন….

    আপনার এই টপিকটাতে আপনি বললেন মুসলিমদেরকে বিভ্রান্ত করা হচ্ছে, নানাভাবে…আমি জানতে চাই কিভাবে আমার মত একজন সাধারণ মুসলিম যে আল্লাহকে আল্লাহ এবং তার একমাত্র রব হিসাবে স্বীকার করে, যার জ্ঞান খুবই অল্প এবং আমলও কিঞ্চিৎ পরিমাণ তারা কিভাবে বুঝবে যে তাকে বিভ্রান্ত করা হচ্ছে???

    আমি আপনার এই লিখাগুলি থেকে কিভাবে বুঝব যে আপনিও একজন ভন্ড নন? কারণ আমার জ্ঞান ত অনেক নয়। যারা মানুষকে বিভ্রান্ত করতে পারে তারা অবশ্যই অনেক জ্ঞানী, আমার মত সাধারণ আম-জনতা তাদের বিভ্রান্তি থেকে কিভাবে নিজেকে রক্ষা করবে???

    উত্তর দিলে খুব খুশি হবো।

    ধন্যবাদ।

    • ওমর আল জাবির says:

      ওয়ালাইকুম সালাম,
      ভাই, মুসলমানদের জন্য কোনো শর্টকাট নেই। একজন সফল মুসলমান হতে হলে জ্ঞান অর্জন করতে হবেই, কু’রআনকে খুব ভালো ভাবে বুঝতে হবেই। এর কোনো বিকল্প নেই। যখন আপনি কুরআনকে ভালোভাবে বুঝে যাবেন, আপনার সব সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে। আপনাকে কেউ বিভ্রান্ত করতে পারবে না এবং আমি বা আমার মতো কেউ ভণ্ড কিনা সেটা যাচাই করতেও কোনো অসুবিধা হবে না। আপনি যেন খুব সহজেই প্রতারক, ভণ্ড, ভুল শিক্ষাকে চিনতে পারেন, তার জন্য আল্লাহ্‌ আপনাকে আল-ফুরকান (সত্য মিথ্যার পার্থক্যকারী) দিয়েছেন। এই আল-ফুরকান যে কারও জন্য যথেষ্ট কাউকে বা কোনো শিক্ষাকে সত্য না মিথ্যা যাচাই করার জন্য।

  41. S. Alam says:

    আসসালামু আলাইকুম
    আপনার পেইজ এ তাকদীর সম্পর্কিত বিস্তারিত পোষ্ট চাই।
    ধন্যবাদ…

  42. S. Alam says:

    আসসালামু আলাইকুম। আশা করি ভালো আছেন। দীর্ঘদিন আপনার কোন পোষ্ট পাচ্ছি না…
    আজ রাত্রে পবিত্র শবে বরাত। এ রাতের অস্তিত্বের ব্যাপারে ভিন্ন ভিন্ন মত পাওয়া যায়। আপনি কি আপনার পরবর্তী পোষ্টে এ সম্পর্কে বিস্তারিত লিখবেন??? লিখলে অনেক খুশি হব।

    ধন্যবাদ…

  43. A.R says:

    প্রফেসর ইব্রাহিম বি সৈয়দ সম্পরকে আপনার মূল্যায়ন কী?আরেকটা প্রশ্ন,আপনি কি ‘তথাকথিত’ সিক্রেট সসাইটি ‘ইলুমিনাটির’ অস্তিত্ব এবং ইসলাম ধ্বংসের জন্য তাদের ষড়যন্ত্রের কথা বিশ্বাস করেন?

  44. কুরানিস্ট সমস্যা কি? তারা অন্তত কুরআন মানে। তারা তো আর নাস্তিক না।

    • ওমর আল জাবির says:

      কিছু কুরানিস্ট আছে যারা দাবি করে কু’রআনে বাড়তি কিছু আয়াত রয়েছে যেটা পরে যোগ করা হয়েছে। আবার অনেকে দাবি করে উনিশ দশকের একজন বিশেষ মানুষ রাসুল ছিলেন ইত্যাদি। তাদের আকিদায় বেশ কিছু ঘাপলা আছে।

      • X67 says:

        This confirms that you know very little about Quranists(even though people like to be addressed simply as Muslim). You are referring to a group called “submitter”, key person of this group is rasad khalifa(who became obsessed with 19 code lately I think). Please learn about people who refused to commit shirk, then add a comment. It would be safer.

        About me, yes I denounce all of the six books of hadith as religious authority. I see them as a historic reference only, which could be true or false or mixed! And I am not a “submitter”(Practical meaning only.). So I believe in Quran as complete-detailed-explained guidance book and intact. No abrogation bullshit or addition(removal) of ayat bullshit either. It is a protected book and will be protected by Allah. And Muhammad is the last prophet. There is no need to look at additional book for salvation. Quran satisfied me enough. HE is everything to me, no need for other identities.

        At first it was a odd thing for me too who used to commit shirk, used to worship last prophet, his follower, his family, mullahs, people, so called religious leaders etc. But yes, HE showed me way. I am now a Muslim.

        Learn and adapt is the right thing, I think.

        P.S. If you really want to know Quran, I would refer this resource.
        http://free-minds.org/forum/
        There are a lot of wise people there. Who are not only expert in Quran, but also in new testament, tanakh or old testament or torah, hadiths. They can assist you more.

        • ওমর আল জাবির says:

          Thank you brother for sharing your view. I have been there for nearly 4 years. I have read all the articles on submitters, 19.org, freeminds, progressive muslims and several other websites that I won’t advertise. I have read and written many posts on freeminds and so on. The position you hold now = Quran-only but not Rashad/Edip follower —I used to hold the exact same position for 4 years. I have spent countless hours spent on arguing with traditional learned muslims, joined debates online, throwing Quran reference at each other based on highly inappropriate English translation and so on. Very long 4 years…

          Then Allaah showed me a wonderful middle path, that I believe is the right middle path. It is a path somewhere between your position and blind submission to Saheeh Hadeeth literature. The only way you will find that middle path is by doing some sincere, unbiased, open minded study on hadith literature and see what the Muhaddiths (scholars of Hadith) have said about many saheeh hadiths. You will be surprised what an enormous amount of logical, rational critique of hadith already exists among the orthodox scholars, which are frankly very carefully hidden from commoners view. I believe that is why we end up with a muslim generation who think they understand hadith and then either submit completely to it or reject it completely. Both are so wrong…

          Anyway, I won’t argue with you, nor will I try to convince you, because I know how I was back then. No amount of argument helps this ‘condition’. As you learn Arabic and gradually realize what level of mistranslations and misunderstandings exist among the traditional muslim and Quranist community, and you gradually read about Hadith analysis, and orthodox scholars work, which are highly controversial and ‘sensored’ away from commoners, you will start to realize the changes you need to make within you, by yourself. I hope and pray Allaah opens the doors for you.

          Salam.

          • X67 says:

            Hmm,
            I had a plan of learning arabic and then Quran. Also a tour of Arab history.
            By seeing the big difference between translations, makes me think of a big heresy. The similarity between sahih hadiths and bible also makes me towards similar thinking.(Also methods and quantity of hadiths) To overturn all of these, Arabic will not be enough I think. Ancient Hebrew and Greek, and the whole of Semitic history is also required I think.

            When God makes our religion simple-easy and Quran’s explanation-completeness-details, I don’t think I would ever need others books for “salvation”. I mean, really what is not written in Quran, is necessary for our salvation? Don’t think so. This part is for making my Lord happy.

            I think I need to learn Arabic very much like English, to understand Quran. This part is directly related to my salvation. And for now I got no choice but to relay on translation. Among so many translations, what should I chose? I think I should have a glance of everyone. Then decide myself. Yes some translations are from polytheist, but that does not mean his/her work is totally zero. I have to do carefully and be wise.

            Learning other things are, for a quest of seeing inside of “that heresy”. Saying as a Game developer, I have to get myself busy with huge amount and variation of works. Lurking with a whole galaxy filled with garbage would be a super time consuming work, probably not my work either. Let the Lord clear things up on judgement day.

            Those who hide things up from the commoner as you said, by all names of God who created all of cells of mine I swear, I will be their obstacle in judgement day. I will testify against them. Insulting our God, prophets, and good peoples in such heinous ways must not go unpunished. I shall see of what pharisees have done with oral torah/talmud/misnah, I shall see of what Jhon paul and his descendents have done with addition/subtraction/hiding/translations filth with God’s law. I shall also see the top to bottom of ha-dithers. If these were just belief of peoples, I would think other ways. But much of act has been done using “these beliefs”. Acts which neither will I ever forget, nor I want to forget. Probably this and satan are the only things I actually hate. Retain as you wish my friend, may the God be with you. Just don’t act anything with a single grain of uncertainty. Might render us in two distinct ways.

            About the above para, please don’t take it negatively. I don’t know why, matter regarding Allah seems to affect me seriously. Trying to portray HIM bad, reacts violently with me, I dunno why this happens, but it just happens. Believe me, if Muhammad were not a prophet of God, I would pay a very little attention of historical abuse of Muhammad(bless be upon him). But the matter is connected with Lord/Allah/God/YHWH/Adonai/Rahman. I still don’t know why this behavior exists within me and what its name. I often do grave sins against HIM(which surely sadden HIM), so it can not be of what people call “Love”. It is just something unnamed which just made me react this way. At first I tried to express the inside violence as outside(physical). Then I realized it is a childish way and could potentially do more harm than good. I adapted myself. Anyway, hope you realize.

            Thank you again. Take care.

  45. Nasser says:

    আসসালামু আলাইকুম ওমর! সুন্দর পোস্ট। একটি খুব গুরুত্তপূর্ণ বিষয় তুলে ধরেছ।
    আমি আরেকটু যোগ করি। শুদু জ্ঞান অর্জন করলেই হবেনা সাথে মেহনতও করতে হবে। এবং সেআনুযাই আমাল করতে হবে ।
    “ভাই, মুসলমানদের জন্য কোনো শর্টকাট নেই।” কথা টা ১০০% সঠিক । একজন সফল মুসলমান হতে হলে জ্ঞান অর্জন করতে হবেই, কু’রআনকে খুব ভালো ভাবে বুঝতে হবেই। এবং হাদিস ও বুঝতে হবে। কারন হাদিস ছাড়া কুরান বুজা যাবেনা। মেহনত করতেই হবে । কোরবানি করতেই হবে। কোরবানি ও মেহনতের কোনো বিকল্প নেই। মেহনত মানে জান, মাল , সময় খরচ করতে হবে ইমান কে শিখার জন্য্। তখন আপনাকে কেউ বিভ্রান্ত করতে পারবে না এবং আল্লাহ তখন আপ্নকে হেদায়েত দিবেন ইনশাল্লাহ !

  46. nizamul hoq chy says:

    Dear Omar
    Muslims are 1.7 billion and Christians are 2 billion. how far it is true ! do you have any reference ? I think Muslims are more than christians and buddists because muslims are growing tremendously. Islam is a real, there is no doubt and everybody knows well. Islam count the month after finding the moon on the sky. Only holy Quran is to be kept in the heart . So we have nothing to be worried to establish glorious Islam.
    Al mighty Allah bless all of us.

    Nizam.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <strike> <strong>